সহকর্মীকে চুমু ; ক্ষমা চেয়ে পদত্যাগ ব্রিটিশ স্বাস্থ্যমন্ত্রীর

প্রকাশিত:রবিবার, ২৭ জুন ২০২১ ১০:০৬

যুক্তরাজ্যে আবারও বেড়েছে করোনার প্রকোপ। মহামারির সময়ে সহকর্মীকে চুমু দিয়ে সামাজিক দূরত্বের নীতি ভঙ্গ করায় সমালোচিত হন ব্রিটিশ অর্থমন্ত্রী ম্যাট হ্যানকক। অবশেষে তিনি পদত্যাগ করেন।

শনিবার হ্যানকক পদত্যাগ করেছেন বলে এএফপির এক প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে।

করোনাকালে ব্রিটিশ স্বাস্থ্যমন্ত্রী ম্যাট হ্যানককের চুমু খাওয়ার ছবি সম্প্রতি প্রকাশ পায়। আর এতে তিনি বিপাকে পড়েন। সামাজিক দূরত্ব ভেঙে সহকারীকে চুমু খাওয়ায় দুঃখ প্রকাশ করে ক্ষমাও চান। কিন্তু সমালোচনা বন্ধ না হওয়ায় পদ ছাড়তে বাধ্য হলেন তিনি।

বিবিসি জানিয়েছে, প্রধানমন্ত্রী বরাবর পাঠানো পদত্যাগপত্রে হ্যানকক লেখেন, মহামারিতে যেই জনগণ অসীম ত্যাগ স্বীকার করেছে সেই জনগণের কাছে সরকারের সৎ থাকা উচিত। ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন দুঃখপ্রকাশ করে পদত্যাগপত্র গ্রহণ করেছেন।

অন্যদিকে সাবেক অর্থমন্ত্রী সাজিদ জাভিদকে নতুন স্বাস্থ্যমন্ত্রী নিযুক্ত করা হয়েছে।

গিনা কোলাডঅ্যাঞ্জেলো নামের ওই সহকারীকে ম্যাট হ্যানকক নিজেই নিয়োগ দিয়েছিলেন।

ব্রিটিশ ট্যাবলয়েড দ্য সানের এক প্রতিবেদনে বলা হয়, হ্যানকক ও কোলাডঅ্যাঞ্জেলো দুজনই বিবাহিত। তাদের তিনটি করে সন্তানও রয়েছে।

গত ৬ মে স্বাস্থ্য বিভাগের ভেতরেই তোলা ওই ছবি প্রকাশের পর লেবার পার্টির পক্ষ থেকে ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসনের প্রতি হ্যানকককে মন্ত্রিসভা থেকে বরখাস্ত করার দাবি জানানো হয়।

তবে ডাউনিং স্ট্রিট বলেছিল, প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন হ্যানকককে ক্ষমা করেছেন এবং বিষয়টি এখানেই শেষ ভাবতে বলেছেন। কিন্তু এখানেই শেষ হলো না। বরিস জনসনের কাছে পদত্যাগপত্র জমা দিয়েছেন হ্যানকক।

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ